1. admin@dashani24.com : admin :
  2. alamgirhosen3002@gmail.com : Alamgir Hosen : Alamgir Hosen
  3. afzalhossain.bokshi13@gmail.com : Md Haurn Or Rashid : Md Haurn Or Rashid
  4. lalsobujbban24@gmail.com : Md. Shahidul Islam : Md. Shahidul Islam
বুধবার, ৩০ নভেম্বর ২০২২, ১২:১৩ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
শেরপুরে অবৈধ করাত কল বন্ধ ও রাস্তার গাছ কাটার অভিযোগ সেরা সংবাদদাতা হিসেবে সাংবাদিক হোসেন শাহ্ ফকিরের প্রথম ও দ্বিতীয় স্থান অর্জন ঝিনাইগাতীতে জমি সংক্রান্ত বিরোধে দিনমজুর গাজীকে হাত-পা বেঁধে নির্যাতন : গ্রেপ্তার-২ নান্দাইলের পল্লীতে বাড়িঘরে হামলা ॥ টাকা সহ গরু লুট মহিলা সহ আহত ৫ ॥ ১০ জনের নামে মামলা ঝিনাইগাতীতে বিলাসপুর-মাদারপুর সোমেশ্বরী নদীতে সেতু না থাকায় মানুষের চরম জনদুর্ভোগ ধোবাউরায় ওমর ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে ফ্রি চক্ষু ক্যাম্প ফেনীতে ইংলিশ মিডিয়াম ইথেরিয়াল স্কুল স্থাপনের সাহসী উদ্যোগ : মেয়র স্বপন মিয়াজী ত্রাস সৃষ্টি করে বাড়িঘর ভাঙচুর ও লুটপাটের অভিযোগ ! ঠাকুরগাঁওয়ে সড়ক দূর্ঘটনায় একই পরিবারের তিনজন নিহত! ঠাকুরগাঁও অগ্নিনির্বাপণ মহড়া অনুষ্ঠিত

শিশু আলিফ’কে বাবা-মার হাতে তুলে দিলেন ধাপেরহাট পুলিশ তদন্ত কেন্দ্র ‘ইনচার্জ সেরাজুল হক’

  • আপডেট সময় : বৃহস্পতিবার, ১২ মে, ২০২২
  • ৬২ বার পঠিত

আল কাদরি কিবরিয়া সবুজ, (গাইবান্ধা) প্রতিনিধিঃ-

অবশেষে দীর্ঘ ১৯ দিন পর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ‘পরিবারের সন্ধান চাই’ শিরোনামে ভাইরাল হওয়া শিশু আলিফ (৮) ফিরে পেলেন বাবা-মা।

১২ মে বৃহস্পতিবার দুপুরে ধাপেরহাট পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের চৌকস ও সুদক্ষ ইনচার্জ সেরাজুল হক শিশু আলিফকে তার বাবা-মার হাতে তুলে দেন।

এসময় শিশু আলিফের বাবা-মার হাতে তুলে দেয়ার সময় আবেগঘন পরিবেশ সৃষ্টি হয়। এবং অনেকেই আবেগে আপ্লূত হয়ে পরেন।

ধাপেরহাট পুলিশ তদন্ত কেন্দ্র ও শিশু আলিফের পরিবার সূত্রে জানা যায়, আলিফ (৮)।

সে নওগাঁ সদর উপজেলার খাস নওগাঁ গ্রামের কাঠ মিস্ত্রি মতিউর রহমান ও মা ছালমা বেগমের ২য় সন্তান। আলিফ বাড়ী থেকে পথ ভুল করে চলে আসে গাইবান্ধার পলাশবাড়ীতে।

সেখানে রাব্বী নামক এক ব্যক্তির কাছে ৭ দিন থেকে সেখান থেকে চলে আসে সাদুল্যাপুরের একবারপুর জয়নালের নিকট। জয়নাল তাকে মহাসড়কের পাশ থেকে বাড়ী নিয়ে যায়।

সেখানে ৮ দিন থাকার পর পিতা-মাতার সন্ধান করতে না পেয়ে জয়নাল আলিফ’কে ধাপেরহাট পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ সেরাজুল হক এর নিকট হস্তান্তর করেন।

চৌকস ও সুদক্ষ ইনচার্জ সেরাজুল হক অবুঝ শিশু আলিফের নিকট বিস্তারিত জানার পর তার বাবা-মা’কে খুঁজে পেতে স্থানীয় সাংবাদিকদের ডেকে ব্যাপক প্রচারের উদ্যোগ গ্রহন করেন।

সেই সঙ্গে স্থানীয় শ্রমিক নেতা নজরুল ইসলামের জিম্মায় আলিফকে রেখে দেন। পরবর্তীতে একাধিক সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে আলিফের পরিবারের সন্ধান চেয়ে ছবি ভাইরাল হয়ে যায়।

আর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছেলের ছবি দেখতে পেয়ে সাদুল্লাপুরের ধাপেরহাট পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রে ছুটে আসেন বাবা মতিউর রহমান ও মা সালমা বেগম। এবং সন্তান’কে সনাক্ত করেন।

এসময় উপস্থিত ছিলেন এবং যাদের কাছে আলিফ ১৯ দিন ছিলো সেই রাব্বী, জয়নাল, নজরুলসহ স্থানীয় সাংবাদিকবৃন্দ।

ধাপেরহাট পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের চৌকস ও সুদক্ষ ইনচার্জ সেরাজুল হক দৈনিক আলোকিত সকাল ও মতপ্রকাশ পত্রিকা’কে বলেন, আলিফ’কে বাবা-মার হাতে তুলে দিতে পেরে আমরা খুব খুশি।

তিনি আরও বলেন, বিশেষ করে স্থানীয় সাংবাদিকগণ শিশু আলিফের পরিবারের সন্ধান চেয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ছবি ভাইরাল করে পরিবারের খোঁজ পেতে সহযোগীতা করেছেন তাদের প্রতি কৃতজ্ঞতা ও ধন্যবাদ জ্ঞাপন করছি।

আরও পড়ুন ঝিনাইগাতীতে বিপুল পরিমাণ সয়াবিন তেল উদ্ধার, ৩ ব্যবসায়ীকে এক লাখ ৮ হাজার টাকা জরিমানা

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরও খবর
© All rights reserved © 2022 Dashani 24
Theme Customized By Shakil IT Park